উখিয়া-টেকনাফে সড়ক দুর্ঘটনায় রোহিঙ্গা শিশুসহ নিহত ৪

fec-image

কক্সবাজারের উখিয়া-টেকনাফে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় রোহিঙ্গা শিশুসহ চার জন নিহত হয়েছে। এঘটনায় আহত হয়েছে আরো ৩ জন যাত্রী। রবিবার (১১ সেপ্টেম্বর) পৃথকভাবে এ সড়ক দুর্ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, দুপুর ১২টার দিকে টেকনাফ উপজেলার হোয়াইক্যংয়ের লম্বাবিল এলাকায় প্রধান সড়কে বাস ও সিএনজির মুখোমুখি সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। টেকনাফ থেকে ছেড়ে আসা এ. সালাম পরিবহন অপর দিক থেকে ছেড়ে আসা সিএনজির মুখোমুখি সংঘর্ষ হলে সিএনজিতে থাকা পাঁচ জন যাত্রীর মাঝে চালকসহ দুইজন নিহত হয়েছেন। তারা হলেন মিনা বাজারের গুনার পাড়ার সিএনজি চালক মো. মামুন (২৮) ও সিএনজির মালিক মো. জয়নাল (৩৫)।

হ্নীলা সিএনজি সমিতির সাধারণ সম্পাদক নূর হোসেন জানান, সিএনজিতে থাকা সবাই এক পরিবারের। তারা পালংখালি গয়ালমরা হাসপাতাল থেকে ফেরার পথে এ ঘটনা ঘটে। হোয়াইক্যং হাইওয়ে পুলিশের ওসি মনিরুল ইসলাম ভূঁইয়া ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

অপরদিকে, সকাল ১১টায় উখিয়া উপজেলার রোহিঙ্গা ক‍্যাম্প-১৫ এর ই-৯ ব্লকস্থ ‘Good neighbours’ এর অফিসের সামনে ১টি ট্রাক (যার রেজি নং চট্রমেট্রো-ট ১২-০৭১৫) নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে উল্টে যায়। ট্রাকটি “care Bangladesh” এর ইট বহন করেছিল বলে জানা গেছে। ট্রাকের চাপায় পড়ে ঘটনাস্থলে পথচারী দুই রোহিঙ্গা শিশু নিহত হয়। আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন (এপিবিএন) এর সহায়তায় ক্যাম্পের ভলান্টিয়ারগণ এবং ফায়ার সার্ভিসের একটি বিশেষ টিম ঘটনাস্থলে নিহত শিশুদ্বয়ের মৃতদেহ উদ্ধার করে উখিয়া থানায় হস্তান্তর করেন। নিহতরা হলেন, উখিয়া এফডিএমএন রোহিঙ্গা ক্যাম্প-১৫ এর ব্লক-জি/১২, (এফসিএন নং-২২৬৪০৭) জিয়াবুল হকের মেয়ে কানতা (১৪) ও ব্লক-জি/২, এফসিএন নং-২২০৯৬৩ এর আব্দুস সালামের মেয়ে নুর কলিমা (১২)। দুর্ঘটনায় কবলিত ট্রাকটির চালককে এপিবিএন পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে আটক করে উখিয়া থানা পুলিশকে হস্তান্তর করেছে।

৮ এপিবিএন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. কামরান হোসেন এ সংবাদের সত্যতা নিশ্চিত করেন।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: উখিয়া, টেকনাফ, নিহত
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ten + 10 =

আরও পড়ুন