তৃতীয় রিপোর্টে নেগেটিভ

দীঘিনালায় আইসোলেশনে থাকা এরশাদ চাকমাকে আনুষ্ঠানিক বিদায়

fec-image

দীঘিনালায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত এরশাদ চাকমার তৃতীয় নমুনার রিপোর্টে নেগেটিভ আসায় আনুষ্ঠানিক বিদায় দেয়া হয়েছে।

শনিবার (৯ মে) সকালে আইসোলেশনে থাকা হোটেল ইউনিটি থেকে বিদায় জানান, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসা কর্মকর্তা ডা. তনয় তালুকদার।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, বোয়ালখালী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান চয়ন বিকাশ চাকমা এবং দীঘিনালা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান প্রজ্ঞান জ্যোতি চাকমা প্রমূখ।

জানা যায়, গত ২২ এপ্রিল তাঁর নমুনা সংগ্রহ করে চট্টগ্রাম বিআইটিআইডিতে পাঠানো হলে, ২৯ এপ্রিল তা পজেটিভ ধরা পড়ে। পরবর্তীতে গত ৩০ এপ্রিল দ্বিতীয় বার নমুনা সংগ্রহ করে চট্টগ্রাম বিআইটিআইডিতে পাঠানো হলে (৩ মে) নমুনার ফলাফল নেগেটিভ আসে।

এদিকে গত ২ মে এরশাদ চাকমার তৃতীয় বার নমুনা সংগ্রহ করা হলে গত শুক্রবার দ্বিতীয় বারের মতো নেগেটিভ আসে।

এদিকে গত পহেলা মে হোটেল ইউনিটিকে আইসোলেশন কেন্দ্র ঘোষণা করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত এরশাদ চাকমা এবং সংস্পর্শে থাকা তার স্ত্রী পূর্ণা চাকমাকে আইসোলেসনে আনা হয়।

এরশাদ চাকমা (৩৫) নারায়নগঞ্জের ‘অনন্ত ওয়াসিং” নামের একটি গার্মেন্টসে কর্মরত ছিলেন। সে উপজেলার কামাকোছড়া গ্রামের ব্রিঙ্গরাজ চাকমার ছেলে।
গত ১৭এপ্রিল নারায়নগঞ্জের আদমজি থেকে স্ত্রীসহ রওয়ানা দিয়ে ১৮ এপ্রিল দীঘিনালা এসে পৌঁছে। পরে তাদের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিন হিসেবে কামাকোছড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রেরণ করা হয়।

এ ব্যাপারে এরশাদ চাকমা জানান, আমি প্রথম থেকেই নিজেকে পুরোপুরি সুস্থ মনে করছি। আমার হাঁচি কাশি বা জ্বর এ ধরনের কোন উপসর্গ ছিলো না।

দীঘিনালা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসা কর্মকর্তা ডা. তনয় তালুকদার জানান, গত ২ মে এরশাদ চাকমার তৃতীয় নমুনা সংগ্রহ করা হয়। পরবর্তীতে গত শুক্রবার নমুনার রিপোর্টে ফলাফল নেগেটিভ আসে।

এদিকে নেগেটিভ আসায় আমরা সবাই খুশি। তাই আজ সকালে আইসোলেশনে থাকা এরশাদ চাকমা এবং তার স্ত্রী পূর্ণা চাকমাকে আনুষ্ঠানিকভাবে সংবর্ধনা প্রদান করে বিদায় জানানো হয়।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: করোনাভাইরাস, খাগড়াছড়ি, দীঘিনালা
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

20 − twelve =

আরও পড়ুন