কুতুবদিয়ায় করোনায় ৩ বন্ধুর অক্সিজেন ব্যাংক

fec-image

কুতুবদিয়ায় করোনার দূর্যোগে মাতৃকার টানে ৩ বন্ধু তৈরি করলেন অক্সিজেন ব্যাংক। দ্বীপ উপজেলায় অক্সিজেনের সংকটে এখনো করোনায় আক্রান্ত রোগী ছাড়াও শ্বাসকষ্টের অধিকাংশ রোগী বাহিরে পাঠাতে হয়। পর্যাপ্ত অক্সিজেন নেই সরকারি হাসপাতালে।

জরুরী মূহুর্তে অক্সিজেন সরবরাহের লক্ষ্য নিয়ে উপজেলার ৩ মেধাবী সন্তান চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের চতুর্থ বর্ষের ছাত্র কাইয়ুমুল হক, সিলেট মেডিকেল কলেজের চতুর্থ বর্ষের সাইফুর রহমান রাহিদ ও চট্টগ্রাম কলেজের অর্থনীতি বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শহিদুল ইসলাম গঠন করেন “প্রজেক্ট মুখের হাসি” নামের সেবামূলক সংগঠন।

এই সংগঠনের ব্যানারেই করোনা সংকটে কুতুবদিয়ায় দরিদ্রদের মাঝে বিনামূল্যে অক্সিজেন সরবরাহের লক্ষ্যে তৈরি হয় অক্সিজেন ব্যাংক। সমাজের বিত্তশালীদের আহ্বান করা হয় এ সেবায় সহযোগিতার।

ইতিমধ্যে অনেকেই সাহায্যের হাত বড়িয়ে দিয়েছেন। দু‘টি অক্সিজেন সিলিন্ডার, ফ্লুমিটার তারা পেয়েছেন। আর্থিক সহায়তা পাবার আশ্বাসও পেয়েছেন বলে কাইয়ুমুল হক জানান।

তিনি আরো বলেন, এক সময় কুতুবদিয়া করোনামুক্ত ছিল। গত দু‘সপ্তাহের মধ্যে প্রায় ৬০ জন আক্রান্ত হয়েছে। আইসোলেশন সেন্টার নেই। অন্তত: তারা জরুরী মুহুর্তে রোগীকে অক্সিজেন সেবা দিতেই তাদের এই উদ্যোগ।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও প.প কর্মকর্তার কাছে তারা একটি অক্সিজেন সিলিন্ডার হস্তান্তর করেছেন। আলী আকবরডেইল, ধুরুংবাজার গুরুত্বপূর্ণ এলাকায় ইউনিয়ন ভিত্তিক অক্সিজেন মজুদের পরিকল্পনা রয়েছে তাদের।

হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. রেজাউল হাসান এই অক্সিজেন ব্যাংক এর তত্বাবধায়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

করোনার দুঃসময়ে অসহায় রোগীদের সেবায় হাতবাড়াতে সমাজের সচেতন, বিত্তশালীদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান ৩ বন্ধু উদ্যোক্ততা।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

12 − 2 =

আরও পড়ুন