চলচ্চিত্র নিয়ে হতাশায় পপি

 বিনোদন রিপোর্ট
চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা পপি গত কয়েকবছর ধরে ছবির কাজ কমিয়ে দিয়েছেন। খুব বেছে বেছে কাজ করছেন তিনি। সেই হিসেবে বছরে দু’তিনটি ছবিতে অভিনয় করতে দেখা গেছে তাকে।
তবে চলতি বছরের শুরু থেকেই তিনি বেশ কয়েকটি নতুন ছবিতে কাজ শুরু করেন। প্রথম থেকে নতুন ছবিগুলোর শুটিং জাঁকজমকভাবে শুরু হলেও কিছুদিন পরই তা আটকে যাচ্ছে। গত দু’বছরে তার অভিনীত উল্লেখযোগ্য কিছু ছবির কাজ বন্ধ রয়েছে। এসব ছবিগুলোর মধ্যে সাদ্দাম হোসেনের ‘বিয়ে হলো বাসর হলো না’, সালমান হায়দারের ‘দেহ’ ও মিঠুর ‘মন খুঁজে বন্ধন’ উল্লেখযোগ্য। জানা যায়, নানা কারণে এ তিনটি ছবির কাজই বন্ধ রয়েছে। ‘বিয়ে হলো বাসর হলো না’ ছবির বেশ কিছু অংশের শুটিং শেষ করেছেন পপি। পপি টানা কয়েকদিন শুটিং করে এর কাজ প্রায় যখন শেষ করেছেন তখনি শুটিং বন্ধ হয়ে যায়। এরপর আর এ ছবির শুটিং হয়নি। এছাড়া ‘দেহ’ ও ‘মন খুঁজে বন্ধনে’র শুটিং ও দীর্ঘদিন ধরেই আটকে রয়েছে। এসব ছবির শুটিং আর শুরু হবে কিনা তা নিয়েও রয়েছে জল্পনা কল্পনা। ফলে এসব ছবি নিয়ে হতাশায় পড়েছেন এই অভিনেত্রী। ও নিশ্চিত করে বলা যচ্ছে না। এ নিয়ে পপি অনেকটাই হতাশার মধ্যে রয়েছেন।
এদিকে পপি গত মাস থেকে জাকির খান পরিচালিত ‘চার অক্ষরের ভালোবাসা’ ছবির শুটিং করছেন। কক্সবাজারের বিভিন্ন লোকেশনে কয়েকদিন তিনি শুটিংও করেছেন। এ ছবিতে তার বিপরীতে রয়েছেন নায়ক ফেরদৌস ও নিরব। এ ছবির শুটিংয়ের সময় একটি পাহাড়ি নৃত্যে অংশ নিতে গিয়ে দুটি বাঁশের চাপে তিনি ডানপায়ে ভীষণ ব্যথা পেয়েছেন। এতে তার পায়ের কিছু অংশ থেঁতলেও গেছে। এরপর থেকেই বাসায় বিশ্রামে আছেন। আগামী এক মাসের মধ্যে তিনি শুটিং করতে পারবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন।
পপি অভিনীত মুক্তি প্রতিক্ষিত ছবিগুলোর মধ্যে রয়েছে- ‘পৌষ মাসের পিরিতি’, ‘জীবন যন্ত্রণা’, ‘শর্টকাটে বড়লোক’, ‘লীলামন্থন’ ও ‘আদরের ভাই’। ১৯৯৭ সালে ‘কুলি’ ছবির মাধ্যমে তার রূপালী পর্দায় অভিষেক ঘটেছিল। এরপর তিনি শতাধিক জনপ্রিয় ছবি দর্শকদের উপহার দিয়েছেন। এ পর্যন্ত তিনি তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেছেন। ছবিগুলোর মধ্যে রয়েছে- ‘কারাগার’, ‘গঙ্গাযাত্রা’ ও ‘মেঘের কোলে রোদ’।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 × 3 =

আরও পড়ুন