তানযীমুল উম্মাহ হিফয মাদরাসার হিফয সমাপনী ও সবক প্রদান

fec-image

দেশের অন্যতম দ্বীনি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান তানযীমুল উম্মাহ হিফয মাদরাসা কক্সবাজার শাখায় হিফয সমাপনী ও সবক প্রদান সম্পন্ন হয়েছে।

রবিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) বিকালে শহরের খুরুশকুল রাস্তা সংলগ্ন প্রতিষ্ঠানটির ক্যাম্পাসে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন তানযীমুল উম্মাহ ফাউন্ডেশনের ভাইসচেয়ারম্যান ড. মীম আতিকুল্লাহ।

শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, পবিত্র কুরআন মহান আল্লাহর পক্ষ থেকে আমাদের জন্য বড় নিয়ামত। কুরআনের শিক্ষক ও পিতা-মাতাকে যথাযথ সম্মান দিতে হবে। পড়ায় গাফিলতি করা চলবে না। নিয়মিত সবক প্রদান করতে হবে।

ড. মীম আতিকুল্লাহ অভিভাবকদের উদ্দেশ্যে আরো বলেন, শুধু বাচ্চাদের মাদরাসায় পাঠালে হবে না, সার্বক্ষণিক তাদের খোঁজখবর নিবেন। দোয়া করবেন। পূর্ণাঙ্গ সফলতা পেতে সন্তানের পাশাপাশি বাড়ির পরিবেশকেও কুরআনের পরিবেশে রূপান্তর করতে হবে।

ফরজ ইবাদতের পাশাপাশি নফলের প্রতিও মনোযোগী হতে অভিভাবকদের আহ্বান জানান প্রধান অতিথি ড. মীম আতিকুল্লাহ।

সেই সঙ্গে হাফেজদের কুরআন ধরে রাখার প্রতিও গুরুত্বারোপ করেন তিনি।

ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ হাফেয মাওলানা রিয়াদ হায়দারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অভিভাবকদের পক্ষ থেকে বক্তব্য দেন- মাওলানা রমিজ আহমদ নুরী ও হামিদুল্লাহ।

কো-অর্ডিনেটর আবু সায়েম মুহাম্মদ ফোরকানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন-তানযীমুল উম্মাহ মহিলা শাখা প্রধান ক্বারী ইয়াহিয়া মানিক।

অনুষ্ঠানে মাদরাসার শিক্ষক আবদুল্লাহ আল মামুন, আবদুল হালিম, রমজান আলী, রফিকুল্লাহ, আবদুল্লাহ আল আরাফাত, বোরহান উদ্দিন, মোহাম্মদ উল্লাহ, আবদুল আজিজ, মোহাম্মদ জুবাইর, তারেকুল ইসলাম, রিয়াজ উদ্দিন, হুমায়ুন কবিরসহ সংশ্লিষ্টরা উপস্থিত ছিলেন।

শিক্ষার্থীদের সবক প্রদান করেন তানযীমুল উম্মাহ ফাউন্ডেশনের ভাইসচেয়ারম্যান ড. মীম আতিকুল্লাহ।

উল্লেখ্য, ২৬ সেপ্টেম্বর তানযীমুল উম্মাহ হিফয মাদরাসা কক্সবাজার শাখা থেকে ১৪ জন আমপারা ও ২৯ জন নাজেরাসহ মোট ৪৩ জন শিক্ষার্থী সবক গ্রহণ করেছেন। একই দিন হিফয সমাপনকারী হিসেবে অনুষ্ঠানে পুরস্কার গ্রহণ করেন- শাহজাদা ফানাফিল্লাহ, আবদুল্লাহ ফারেস, শিহাদ হোসাইন, হোজাইফ বিন হামিদ, সাওয়াদ ইস্তিসার।

অনুষ্ঠানের শুরুতে স্বাগত বক্তব্যে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ হাফেয মাওলানা রিয়াদ হায়দার বলেন, দুনিয়ায় যত পুস্তক আছে তার মধ্যে সর্বশ্রেষ্ঠ গ্রন্থ পবিত্র কুরআন। এই কিতাবের সাথে যারা সম্পর্ক রাখবে; তিলাওয়াত করবে, কুরআনের নির্দেশমতে জীবন চলবে, তারাই পৃথিবীর সেরা মানুষ। দুনিয়া ও আখেরাতে শান্তির জন্য মহান ঐশী গ্রন্থ কুরআনের বিকল্প নাই।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twelve + three =

আরও পড়ুন