অস্কারজয়ী প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ অভিনেতা সিডনি পোয়াটিয়ে আর নেই

fec-image

মারা গেলেন হলিউডের প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ তারকা অভিনেতা সিডনি পোয়াটির। ৯৪ বছর বয়সে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন তিনি। প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ হিসেবে ১৯৬৩ সালের অস্কারে সেরা অভিনেতার পুরস্কার বিজয়ী সিডনি পোয়াটিয়ে

বাহামার স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার (৬ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় এই অভিনেতা মারা যান বলে দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা ফ্রেড মিচেল বিবিসিকে নিশ্চিত করেছেন।

এছাড়া জনপ্রিয় মার্কিন টেলিভিশন ব্যক্তিত্ব অপরা উইনফ্রেও এই অভিনেতার মৃত্যুর খবর জানিয়ে একটি টুইট করেছেন।

সিএনএন সিডনি পোয়াটিয়েকে ‘হলিউডের প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ মুভি স্টার’ হিসেবে বর্ণনা করেছে।

‘লিলিস অব দ্য ফিল্ড’ চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য ১৯৬৩ সালে অস্কারে সেরা অভিনেতার পুরস্কার জিতেছিলেন পোয়াটিয়ে। এর পাঁচ বছর আগে ‘দ্য ডিফিয়েন্ট ওয়ানস’ চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ হিসেবে অস্কারে মনোনয়ন পেয়েছিলেন তিনি।

৫০ ও ৬০ দশকে যখন বর্ণবৈষম্যকে কেন্দ্র করে মার্কিন মুলুকে আন্দোলন শুরু হয়েছিল, সমাজের সেই ছবিকেই রুপালি পর্দায় তুলে ধরে সিডনি পোয়াটিয়ে সাফল্যের শীর্ষে উঠেছিলেন। ১৯৬৭ সালে তার জোড়া ক্ল্যাসিক সিনেমা ‘গেস, হু ইজ কামিং টু ডিনার’ এবং ‘ইন দ্য হিট অব দ্য নাইট’ দর্শকদের মনে স্বতন্ত্র জায়গা করে নিয়েছিল।

২০০২ সালে পুরো জীবনের অসাধারণ পারফরম্যান্সের জন্য তাকে সাম্মানিক অস্কার দেওয়া হয়। ২০০৯ সালে তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা তাকে দেশের সর্বোচ্চ নাগরিক সম্মান ‘মেডেল অব ফ্রিডম’-এ সম্মানিত করেন।

সিডনি পোয়াটিয়ে ১৯২৭ সালের ২০ ফেব্রুয়ারি ফ্লোরিডার মিয়ামিতে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি বেড়ে ওঠেন বাহামা দ্বীপপুঞ্জে। সে সময় চলচ্চিত্রে কৃষ্ণাঙ্গদের ভালো কাজের সুযোগ কম থাকলেও অভিনয়ের গুণে পোয়াটিয়ে হয়ে উঠেছিলেন তার সময়ের শীর্ষ অভিনেতাদের একজন। তার অভিনীত অনেক চলচ্চিত্রের মূল উপজীব্য ছিল মার্কিন নাগরিক আন্দোলনের পরিপ্রেক্ষিতে সামাজিক পরিবর্তন।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

16 − six =

আরও পড়ুন