ঈদগাঁওয়ে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন

ঈদগাঁও প্রতিনিধি:

কক্সবাজার সদরের ঈদগাঁওয়ে বলৎকারের ঘটনায় দায়েরকৃত মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছে পরিষদবর্গ।

শুক্রবার (১২ এপ্রিল) বিকেলে ঈদগাঁওস্থ ইসলামাবাদ ইউনিয়ন পরিষদ মিলনায়তনে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, বিগত ৭ এপ্রিল রাতে সংঘটিত বলৎকারের ঘটনায় জড়িত স্থানীয় মসজিদের ইমাম আবদুর রশিদ কর্তৃক বিকৃত যৌনাচারের ঘটনা।

সম্মেলনে জানানো হয়, আবদুর রশিদ ঐ দিন রাতে এলাকার শিশুদের সাথে বলৎকার করার সময় এলাকার জনগণ হাতে নাতে আটক করে চেয়ারমেনের নিকট সোপর্দ করে। এসময় রশিদের স্বীকারোক্তির পরে তাকে ওয়ার্ড মেম্বারের অনুরোধে মেম্বরের জিম্মায় ছেড়ে দেওয়া হয়।

সম্মেলনে আরও জানানো হয়, ঐসময়ে আবদুর রশিদ তার সমাজের সর্দার, স্ত্রী এবং উপস্থিত জনতার সামনেও রাতের ঘটনা স্বীকার করেছে।

এসময় রশিদ আরও স্বীকার করে যে বিগত ৩/৪ বছর ধরে স্থানীয় দুই কিশোর এবং বহিরাগত আরও তিন কিশোরকে বিভিন্ন সময়ে এনে তার কক্ষে এ বিকৃত যৌনাচার করে আসছে। এছাড়াও রশিদের বিরুদ্ধে মসজিদের টাকা আত্মসাতের অভিযোগও প্রমাণিত হয়।

কিন্তু এরপর রশিদ কিছু কুচক্রি মহলের যোগসাজশে কথিত সংগঠনের নাম ব্যবহার করে কক্সবাজার শহরে সংবাদ সম্মেলন করে দিবালোকের মত স্পষ্ট ঘটনাকে ভিন্নভাবে উপস্থাপন করে নিজেকে নির্দোশ হিসেবে তুলে ধরে।

এমনকি শুক্রবার জুমার নামাজে মাদকের বিরুদ্ধে বক্তব্য দেয়ায় চেয়ারম্যানের সহযোগী হিসেবে বলৎকারের ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী জাফর আলম ও নুরুচ্ছবিকে মাদক ব্যবসায়ী সাজিয়ে তারাই ক্ষিপ্ত হয়ে আবদুর রশিদকে মারধর করেছে বলে উল্লেখ করে আসল ঘটনা আড়াল করে ইসলামাবাদ চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সভাপতি নুর ছিদ্দিক, ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী জাফর ও নুরুচ্ছবিকেসহ আরও কয়েকজনকে আসামী করে ষড়যন্ত্রমূলক মামলা দায়ের করে রশিদ।

ইতিমধ্যে ঐ মামলায় একাধিক আসামী আটক হয়েছে।

পরিষদবর্গ অবিলম্বে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে প্রকৃত ঘটনা উদঘাটনে প্রশাসনের জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

ইতিপূর্বেও রশিদ বিভিন্ন স্থানে চাকরিকালে এ বিকৃত যৌনচারের অভিযোগে চাকরি ছাড়া হয় বলে দাবি করেন।

যা সরেজমিনে তদন্ত করলে প্রকৃত রহস্য বেরিয়ে আসবে। তারা পরিষদের পক্ষ থেকে রেজুলেশন করে প্রশাসনের বিভিন্ন দফতরে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে স্মারক লিপি পেশ করবেন বলে সাংবাদিকদের জানান।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও ইউপি সদস্য সাইফুল ইসলাম।

এসময় উপস্থিত ছিলেন যথাক্রমে প্যানেল চেয়ারম্যান নুরুচ্ছবি, ইউপি সদস্য ওমর আলী, দিদারুল ইসলাম, আবু ছিদ্দিক বান্ডি, সিরাজুল ইসলাম, ছৈয়দ নুর, ওমর মিয়া, সেতেরা বেগম, ফরিদা ইয়াছমিন, নাছিমা আক্তার, আওয়ামীলীগ নেতা নুরু কোং, সচিব আলতাজ আহমদ প্রমুখ।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: ঈদগাঁওয়ে চেয়ারমেনের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

8 − 4 =

আরও পড়ুন