কুতুবদিয়ায় উত্তপ্ত হয়ে উঠছে নির্বাচনি মাঠ

fec-image

কুতুবদিয়ায় আর একদিন বাদেই সোমবার ৬ ইউপিতে নির্বাচন। নির্বাচন সুষ্ঠু অবাদ গ্রহণের প্রতিশ্রুতির মধ্যেই কয়েকটি ইউনিয়নে সহিংসতার ঘটনা ঘটছে। অভিযোগও পড়েছে থানায়। আহত হয়েছে কয়েকজন। তবে বেশিরভাগ ঘটনা প্রচারণা কাজে বাধা আর হামলা।

আলী আকবর ডেইল ইউনিয়নে নৌকার ব্যানার, প্রতীকে অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটেছে। একইভাবে লেমশীখালী ইউনিয়নে নির্বাচনি অফিস ভাঙচুর, পোস্টার আগুন ইত্যাদির অভিযোগ থানায়। এরপর নৌকার কর্মীকে একজন ইউপি সদস্যের ভাইয়ের বেধড়ক পিটুনির ঘটনাও ঘটেছে বৃহস্পতিবার রাতে।

উত্তর ধুরুং ইউনিয়নে রাতের আধারে নৌকার ব্যানারে আগুন লাগানোর ভিডিও এখন ভাইরাল। অভিযোগ চেয়ারম্যান প্রার্থী সদ্য আ‘লীগ থেকে বহিস্কৃত নেতা সিরাজুদ্দৌলাহ ও তার ভাইয়ের বিরুদ্ধে। একই দিন বড়ঘোপ রোমাই পাড়ায় নৌকার প্রচারণার টেক্সিচালককে মারধর করার অভিযোগ করা হয়েছে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী আ.ন.ম শহীদ উদ্দিন ছোটনের সমর্থকদের বিরুদ্ধে। এ ঘটনার কয়েক দিন আগে নৌকার প্রচারণার মিছিল থেকে ঘোড়া প্রতীকের প্রচারণার মাইক ভাঙচুর করার ঘটনাও ঘটে। এটির রেশ না কাটতেই ফের প্রচারণায় চালকের হামলার ঘটনায় উপজেলা সদর জুড়ে আ‘লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীরা ক্ষোভে ফেঁটে পড়েন। আতঙ্কিত থমথমে অবস্থা দ্বীপ জুড়ে। নির্বাচন সুষ্ঠু নিয়ে দ্বিমত করেন অনেক ভোটার সর্মথকেরা।

লেমশীখালী ইউপির চেয়ারম্যান ও চশমা প্রতীকের প্রার্থী আক্তার হোছাইন বলেন, নৌকার প্রার্থীর অফিসে অগ্নিসংযোগের কোন ভিত্তি নাই। তাকে হয়রানি করতে এটি সাজানো হয়েছে। তবে তিনি নির্বাচন সুষ্ঠু হবে- এমন আশা ব্যক্ত করেন।

একই ধরণের কথা জানিয়ে উত্তর ধুরুং ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান ও প্রার্থী সিরাজুদ্দৌলাহ বলেন, নৌকার প্রতীকে অগ্নিসংযোগ এসব মিথ্যা। তবে প্রশাসন সুন্দর নির্বাচন উপহার দেবে বলে তিনি আশাবাদি।

বড়ঘোপ ইউনিয়ন আ‘লীগের সভাপতি ও নৌকার প্রার্থী আবুল কালাম জানান, নির্বাচনে হামলা, মামলা অথবা জোর জুলুম করে তিনি ভোটে জিততে চাননা। সুষ্ঠু ভোট হোক এবং জনগণই তাকে নির্বাচিত করবে বলে তিনি মনে করেন।

অপরদিকে সমন্বয় করে প্রতিটি ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও সরেজমিন পরিদর্শন করেন উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসন। যার দরুন প্রার্থী ও সাধারণ ভোটারগণ অনেকটাই আস্থা ফিরে পাবে বলে বেশ কয়েকজন চেয়ারম্যান প্রার্থী জানান।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

one × two =

আরও পড়ুন