বাংলাদেশকে মেধাশূন্য করতেই বুদ্ধিজীবীদের হত্যা: এমপি আশেক

fec-image

পরাজয় নিশ্চিত জেনে বাংলাদেশকে মেধাশূন্য করতে ১৯৭১ সালে বাঙালি বুদ্ধিজীবীদের হত্যা করেছিল পাক হানাদার বাহিনীর দোসর আলবদর, আল-শামস বাহিনী বলে মন্তব্য করেছেন মহেশখালী কুতুবদিয়ার সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আশেক উল্লাহ রফিক।

মঙ্গলবার (১৪ ডিসেম্বর) সকালে মহেশখালী উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন তিনি।

তিনি আরও বলেন, তারা এই হত্যাকান্ডের মধ্য দিয়ে ভেবেছিল বাংলাদেশ আর কখনো মাথা উঁচু করে দাঁডাতে পারবে না। আবার পাকিস্তানের সাথে হাত মিলিয়ে এই বাংলাদেশকে চলতে হবে। কিন্তু তারা বুঝতে পারেনি বাঙালি বীরের জাতি। ভাষা আন্দোলনের মাধ্যমে বাংলা ভাষাকে মাতৃভাষার মর্যাদায় প্রতিষ্ঠিত করেছে এই বাঙালি। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ছিলেন অবিসংবাদিত নেতা। তিনি আন্দোলন-সংগ্রামের মধ্যদিয়ে বাঙালি জাতিকে মুক্তিসংগ্রামের জন্য প্রস্তুত করেন। নানা চড়াই-উৎরাই পেরিয়ে ১৯৭১ সালের ২৬ মার্চ তিনি স্বাধীনতার ঘোষণা দেন।

এ সময় তিনি বুদ্ধিজীবীদের আদর্শ অনুসরণ করে মুক্তিযুদ্ধের চেতনাভিত্তিক সমৃদ্ধ সোনার বাংলা গড়ার আহ্বান জানান। মহেশখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার সাইফুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন , মহেশখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মর্কতা মো. আব্দুল হাই , জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি এম আজিজুর রহমান, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ন সম্পাদক মাস্টার রুহল আমিন, মুক্তিযুদ্ধা সালেহ আহমেদ, উপজেলা প্রকৌশলী সবুজ কুমার দে, মুক্তিযুদ্ধা ফিরোজ খান, ডাঃ সলিমুল্লাহখান, নুরুল হক, পরিবার পরিকল্পনা কর্মর্কতা তাপস দত্ত সহ আওয়ামী লীগ যুবলীগ ছাত্রলীগ সহ অঙ্গসহযোগি সংগঠনের নেতা কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে জাতীয় পতাকা এবং কালো পতাকা উত্তোলন, বঙ্গবন্ধুসহ জাতীয় চার নেতার প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ ও শহীদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে এক মিনিট নীরবতা পালন করা করেন সাংসদ আশেক সহ দলীয় নেতা কর্মীরা।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

14 + 14 =

আরও পড়ুন