মানিকছড়ি’র ৬’শ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের ঠাঁই হচ্ছে নতুন ঠিকানায়

fec-image

স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও মুজিব জন্মশত বর্ষে দেশব্যাপি ভূমি ও গৃহহীন পরিবারে ‘প্রধানমন্ত্রীর উপহার’ আশ্রয়ণ প্রকল্প-২এর আওতায় ভূমি ও নান্দনিক ডিজাইনে ঘর দিতে তৃণমূলে কাজ করছে জনপ্রতিনিধি ও প্রশাসন। মানিকছড়ি উপজেলার ৬শ পরিবার ঠাঁই পেতে যাচ্ছে নতুন ঠিকানায়।

সরজমিন ও প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, স্বাধীনতা সূবর্ণজয়ন্তী ও জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবর্ষ উপলক্ষে ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র উপহার’ আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর অধীনে সারাদেশে ভূমি ও গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে নান্দনিক ডিজাইন ও রঙ্গিন ঢেউটিনের ছাউনিতে গড়া সেমিপাকা ঘর। পার্বত্য খাগড়াছড়ির মানিকছড়ি উপজেলায় অনাদর, অবহেলায় ও সুবিধাবঞ্চিত এসব জনগোষ্ঠির মাঝে প্রধানমন্ত্রীর উপহার তুলে দিতে তৃণমূল চষে বেড়াচ্ছেন জনপ্রতিনিধি ও উপজেলা প্রশাসন। ফলে প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর অধীনে ১ম ও ২য় পর্যায়ে এখানকার ৬শত দরিদ্র পরিবার খুঁজে পেয়েছে নতুন ঠিকানা‘শান্তির নীড়’। মৌলিক অধিকার বঞ্চিত শিশু, কিশোর ও বয়োবৃদ্ধ পরিবারে এখন চলছে আনন্দের বন্যা।

আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর অধীনে ১ম ও ২য় পর্যায়ে উপজেলার ৬শ পরিবারকে তৃণমূলে খুঁজে খুঁজে অন্তর্ভূক্ত করেছেন জনপ্রতিনিধি ও উপজেলা প্রশাসন। সুবিধাভোগী ৬শ পরিবারের মধ্যে ৫৫টি গৃহ প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক ইতোমধ্যে হস্তান্তর করা হয়েছে। বর্তমানে ২৭৩টি ‘ভূমিহীন ও গৃহহীন(‘ক’ শ্রেণির পরিবার পূর্নবাসনে নির্মিত) পরিবারকে আশ্রয় দিতে গৃহ নির্মাণ সম্পন্ন হয়েছে। যা আগামী ২০জুন প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক উক্ত গৃহ হস্তান্তর করা হবে। অবশিষ্ট ২৭২টি গৃহের নির্মাণকাজ চলমান রয়েছে। এসব ঘরের মধ্যে উপজেলার ‘কর্ণেল বাগানস্থ’ বঙ্গবন্ধু ভিলেজ’ আশ্রয় কেন্দ্রে-৩৫টি, বড়ডলু কঞ্জুরীপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সংলগ্ন আশ্রয় কেন্দ্রে-১৫টি, গোদাতলীতে-১২টি এবং গচ্ছাবিলে-২৫টি (প্রস্তাবিত) নির্মানাধীন রয়েছে। এছাড়া অবশিষ্ট ঘরগুলো সরকারি খাস খতিয়ানভূক্ত ও দখলীয় ভূমিতে নির্মাণ করা হয়েছে। পুরো নির্মাণ কাজ বাস্তবায়নে ছিলেন সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যান ও উপজেলা প্রশাসন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার তামান্না মাহমুদ বলেন, মুজিব জন্মশতবর্ষে ‘প্রধানমন্ত্রীর উপহার’ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার শনাক্ত(খুঁজতে) করতে গিয়ে তৃণমূলে অসহায় হত-দরিদ্র জনগোষ্ঠির জীবনযাত্রা দেখে খুবই ব্যথিত হয়েছি। বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী তৃণমূলের এসব সুবিধাবঞ্চিত জনগোষ্ঠির পাশে দাঁড়িয়ে বিশ্বে নজির সৃষ্টি করেছেন।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

fifteen − 2 =

আরও পড়ুন