মিয়ানমারের জনপ্রিয় অভিনেতা গ্রেফতার

fec-image

মিয়ানমারের সবচেয়ে জনপ্রিয় সেলিব্রেটিদের একজন পাইং তাখনকে আটক করেছে দেশটির সেনাবাহিনী। অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভে তিনি সশরীরে ও অনলাইনে সক্রিয় ছিলেন।

বিবিসির খবরে বলা হয়েছে, দেশটিতে গণতন্ত্রপন্থিদের বিক্ষোভে নিরাপত্তা বাহিনীর ধরপাকড়ে রেহাই পাচ্ছেন না শিল্পী ও অভিনয় জগতের লোকজনও।

দেশজুড়ে মডেল ও অভিনেতা পাইং তাখনের লাখো ভক্ত রয়েছেন। ফেসবুকসহ তার ১০ লাখের বেশি অনুসারীর ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। তার মোবাইল ফোনও জব্দ করেছে সেনাবাহিনী।

১ ফেব্রুয়ারি গণতান্ত্রিকভাবে নির্বাচিত সরকারকে উৎখাত করে ক্ষমতা দখল করে দক্ষিণপূর্ব এশিয়ার দেশটির সেনাবাহিনী। এরপর থেকে গণতন্ত্রকামীদের অব্যাহত বিক্ষোভ চলছে। এতে নিরাপত্তা বাহিনীর রক্তক্ষয়ী ধরপাকড়ে প্রাণহানিও বাড়ছে।

পাইং তাখনের বোন থি থি লুইনের ফেসবুক পোস্ট থেকে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টায় আটটি সামরিক ট্রাকযোগে অর্ধশতাধিক সেনা তাকে গ্রেফতার করতে আসে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক তার এক ঘনিষ্ঠজন জানান, ইয়াঙ্গুনের শহরতলি নর্থ ডাগোনে তার মায়ের বাড়ি থেকে এই অভিনেতাকে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

তিনি বিষণ্ণতায় ভুগছেন বলেও জানান তার স্বজনরা। এক পরিচিতজন বলেন, তার শারীরিক অবস্থা ভালো না। তিনি ঠিকমতো দাঁড়াতে পারছেন না। হাঁটতেও সমস্যা হচ্ছে।

নিজের পরিণতি সম্পর্কে জেনেও এতটুতু শঙ্কিত নন ২৪ বছর বয়সী পাইং তাখন।

অভ্যুত্থানের বিরুদ্ধে কথা বলায় প্রায় ১০০ চলচ্চিত্র পরিচালক, অভিনেতা, সেলিব্রেটি ও সাংবাদিকের বিরুদ্ধে ইতিমধ্যে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছে।

সূত্র: somoynews.tv

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

eleven − 7 =

আরও পড়ুন