আদালতে জবানবন্দি দিলেন উপজাতীয় সন্ত্রাসী চিংচিং প্রু

fec-image

লামা উপজেলার রুপসীপাড়া ইউনিয়নের হাফেজ পাড়ায় স্কুল শিক্ষকের বসতঘর আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেওয়ার কথা স্বীকার করেছেন উপজাতীয় সন্ত্রাসী চিংচিং প্রু।

মঙ্গলবার (১১ ফেব্রুয়ারি)বিকালে লামা সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আনিসুর রহমান এর নিকট নিজেকে এই ঘটনায় সম্পৃক্ত করে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।

জবানবন্দি প্রদান কালে শৈ প্রু মার্মার ছেলে চিংচিং প্রু জানায়, তিন লক্ষ ৫০ হাজার টাকা না দেওয়ায় স্কুল শিক্ষক খালেকুজ্জামানের বসতবাড়ি পেট্রোল দিয়ে পুড়িয়ে দিয়েছে। একই পাড়ার আরো কয়েকজনকে চাঁদাদাবি করে উড়ো চিঠি দিয়েছে বলে সে ম্যাজিস্ট্রেট কে জানিয়েছে।

সোমবার বিকালে স্থানীয় জনসাধারণের সহায়তায় পুলিশ তাকে ফাঁসিয়াখালী ইউনিয়নের ইয়াংছা হতে গ্রেফতার করে লামা থানায় নিয়ে আসে।

মঙ্গলবার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করলে সে দোষ স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেন।

রবিবার ভোররাতে হাফেজ পাড়ায় স্কুল শিক্ষক খালেকুজ্জামানের বসতবাড়ির একটিঘর অজ্ঞাত দূবৃত্তরা পুড়িয়ে দেয়। এতে তার প্রায় ১২ লাখ টাকার ক্ষতি হয়।

এর পূর্বে হাফেজপাড়া ,মাস্টারপাড়া ও বৈদ্যভিটা পাড়ায় ১২ টি বসতবাড়ি পুড়িয়ে দেওয়ার চেষ্টা করা হয়।

এলাকায় উড়োচিঠি দিয়ে বিভিন্ন জনের নিকট লাখ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন এই উপজাতীয় সন্ত্রাসী।

শিক্ষক খালেকুজ্জামান বাদি হয়ে উপজাতীয় সন্ত্রাসী চিংচিং প্রুসহ অজ্ঞাতনামা আরো ৪/৫ জনকে আসামি করে গত রবিবার বিকালে লামা থানায় মামলা দায়ের করেন।

লামা থানা অফিসার ইনচার্জ অপ্পেলা রাজু নাহা জানান, এজহার নামীয় আসামি দোষ স্বীকার করে ম্যাজিস্ট্রেট এর নিকট জবানবন্দি দিয়েছে।মামলার তদন্ত চলছে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

20 − eighteen =

আরও পড়ুন