কক্সবাজার ভূমি অধিগ্রহণ শাখার সাবেক এএলও’র জামিন নামঞ্জুর

fec-image

কক্সবাজার ভূমি অধিগ্রহণ শাখার সাবেক এএলও, বর্তমানে খাগড়াছড়িতে একই পদে কর্মরত বিজয় কুমার সিংহের জামিন আবেদন নামঞ্জুর করেছে আদালত।

রবিবার (২১ মার্চ) কক্সবাজার সিনিয়র স্পেশাল আদালতের বিচারক মো. ইসমাইল জামিন আবেদনের উপর দীর্ঘ শুনানী শেষে তাকে জেল হাজতে পাঠান। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দুদকের পিপি এড. আব্দুর রহিম। বিজয় কুমার সিংহকে ১৫ মার্চ চট্রগ্রাম জিইসি মোড় এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করে দুদক।

এর আগে গত ২ মার্চ ওই মামলায় কক্সবাজারের আলোচিত মোহাম্মদ ইদ্রিস সিআইপি ও অ্যাডভোকেট নুরুল হককে গ্রেপ্তার করা হয়। ইদ্রিস সিআইপি বর্তমানে দুদকের রিমান্ডে রয়েছেন। অ্যাডভোকেট নুরুল হক জামিনে কারামুক্ত হন। এই মামলায় এখন পর্যন্ত ১০ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা দুদকের উপ-সহকারী পরিচালক শরীফ উদ্দিন।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা আদালতকে জানিয়েছেন, এর আগে গ্রেপ্তার হওয়া দালাল সালাহ উদ্দিন ও কমর উদ্দিন ১৬৪ ধারায় আদালতে দেওয়া স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে বিজয় কুমার সিংহকে কমিশন প্রদান করতেন বলে জানিয়েছেন।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা আদালতকে আরও জানান, কক্সবাজারে পিবিআই (পুলিশ অব ইনভেস্টিগেশন) অফিস নির্মাণ প্রকল্পের জমি অধিগ্রহণ মামলায় (এলএ মামলা নং-০৪/২০১৮-১৯) একে অপরের যোগসাজশে ক্ষমতার অপব্যবহারপূর্বক আসামি বিজয় কুমার সিংহ ২০৩০৭ দাগে ফিল্ড বুক ও অধিগ্রহণের আওতাভুক্ত না হওয়া সত্ত্বেও জাল দলিল ও খতিয়ান তৈরি করে টিপু সুলতানকে ০.০৩৫২ একর জায়গার বিপরীতে ১ কোটি ৫৬ লক্ষ ১ হাজার ৬৫৩ টাকা ২৩ পয়সা, জিনাত রেহেনাকে ০.০৪৪১ একর জায়গার বিপরীতে ৮৬ লক্ষ ৭১ হাজার ১৬২ টাকা ৮৮ পয়সা, বেলায়েত হোসেনকে ০.০৫ একর জায়গার বিপরীতে ১ কোটি ৮ লক্ষ ৫০ হাজার ৫১৪ টাকা ৮ পয়সা, স্থগিত খতিয়ান ব্যবহার করে গ্রেপ্তার হওয়া মোহাম্মদ ইদ্রিছকে অবকাঠামোর বিপরীতে ৩১ লক্ষ ২৫ হাজার ৬৫৫ টাকা ৮ পয়সা, গোলাম মওলাকে ০.০২৬৫ একর জায়গার বিপরীতে ৬৫ লক্ষ ২১ হাজার ৪৮৭ টাকা ৩৯ পয়সাসহ মোট ৪ কোটি ৪৭ লক্ষ ৭০ হাজার ৪৭২ টাকা ৬৬ পয়সা পরিশোধ করার অবৈধ সহযোগিতা করেছেন।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

5 × 4 =

আরও পড়ুন