কাউখালীতে ৯ কোটি টাকা মূল্যের গাঁজার ক্ষেত ধ্বংস

fec-image

রাঙামাটির কাউখালী উপজেলার ঘাগড়া ইউনিয়নের দুর্গম ঢেবাছড়ি এলাকায় যৌথ বাহিনী অভিযান চালিয়ে ৯ কোটি টাকা মূল্যের গাঁজার ক্ষেত ধ্বংস করেছে। এ সময় এক গাঁজা চাষীকে আটক করেছে যৌথবাহিনি। ধ্বংস করা গাঁজার পরিমাণ প্রায় ৬ হাজার কেজি (৬ টন)।

সোমবার রাত আড়াইটার দিকে সেনাবাহিনী ও র‌্যাব ৭ এর অভিযানে এই গাঁজার ক্ষেত ধ্বংস করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন র‌্যাব-৭ এর সিনিয়র সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) মো. নুরুল আবছার।

যৌথ বাহিনীর সূত্রে জানা গেছ, গোপণ সংবাদের ভিত্তিতে সোমবার রাত আড়াইটার দিকে সেনাবাহিনী ও র‌্যাব সদস্যদের চৌকস একটি দল ঘাগড়া ইউনিয়নের দুর্গম ঢেবাছড়ি এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে। এসময় অভিযানের টের পেয়ে পালানোর সময় গাঁজা চাষী জ্যোতি লাল চাকমা (৪০) কে আটক করা হয়। সে ঢেবাছড়ি গ্রামের রেদু কুমার চাকমার ছেলে।

আটক ব্যক্তি দীর্ঘ দিন থেকে গোপনে গাঁজা চাষ করে মাদক চোরা কার্বারী সিন্ডিকেটের মাধ্যমে তা দেশের বিভিন্ন স্থানে পাচার করে আসছিল। পরে পাহাড়ের উপর চাষ করা প্রায় ৬ হাজার কেজি (৬টন) গাঁজার ক্ষেত আগুনে পুড়িয়ে ধ্বংস করা হয়। যার বর্তমান বাজার মূল্য আনুমানিক ৯ কোটি টাকা বলে ধারনা করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, চলতি বছরের ১৯ জানুয়ারি ও ৩০ মার্চ খাগড়াছড়ি জেলার লক্ষ্মীছড়ি থানায় দুটি পৃথক অভিযান চালিয়ে ২২৮৮ কেজি গাঁজা উদ্ধার করা হয়। পরে ২টি গাঁজার ক্ষেত ধ্বংস করা হয় এবং ৯ ফেব্রুয়ারি রাঙামাটির কাউখালী থানাধীন ফটিকছড়ি এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৮২২ কেজি গাঁজা উদ্ধার করা হয়। পরে ১টি গাঁজার ক্ষেত ধ্বংস করা হয়।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

two × four =

আরও পড়ুন