চকরিয়ায় পাহাড় কাটার বিরুদ্ধে ইউএনও’র অভিযান, ডাম্পার জব্দ

fec-image

কক্সবাজার উত্তর বনবিভাগের ফাঁসিয়াখালী রেঞ্জের আওতাধীন চকরিয়া উপজেলার কাকারা বনবিটের বারআউলিয়া নগর এলাকায় রাঁতের অন্ধকারে পাহাড় কাটার বিরুদ্ধে অভিযান চালায় উপজেলা প্রশাসনের ভ্রাম্যমান আদালত। এসময় পাহাড় কেটে মাটি বিক্রয়ের পরিবহন কাজে ব্যবহৃত নাম্বার বিহীন একটি ডাম্পার গাড়ি জব্দ করা হয়।

রবিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সৈয়দ শামসুল তাবরীজের নেতৃত্বে কাকারা ইউনিয়নের বারআউলিয়া নগর এলাকায় এ অভিযান পরিচালনা করেন।

বনবিভাগ সূত্রে জানাগেছে, কক্সবাজার উত্তর বনবিভাগের ফাঁসিয়াখালী রেঞ্জের কাকারা বনবিটের নিয়ন্ত্রণাধীন বারআউলিয়া নগর এলাকায় স্থানীয় একটি পাহাড় খেকো চক্র প্রশাসন ও বনবিভাগের চোখকে ফাঁকি দিয়ে রাতের অন্ধকারে পাহাড় কেটে মাটি বিক্রি করে আসছিল। ওই এলাকায় পাহাড় কেটে মাটি বিক্রয় করার বিষয়টি স্থানীয়রা উপজেলা প্রশাসনকে অবহিত করলে প্রশাসন বিষয়টি আমলে নিয়ে রবিবার রাতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সৈয়দ শামসুল তাবরীজের নেতৃত্বে বারআউলিয়া নগর এলাকায় অভিযান পরিচালনা করেন।

অভিযানে নেতৃত্ব দেয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সৈয়দ শামসুল তাবরীজের বলেন, উপজেলার কাকারা ইউনিয়নের বারআউলিয়া নগর এলাকায় রাতের অন্ধকারে পাহাড় কেটে পরিবহণের মাধ্যমে মাটি বিক্রি করেছিল একটি চক্র। বিষয়টি অবগত হওয়ার পরে ওই এলাকায় অভিযান চালানো হয়। এসময় পাহাড় কেটে মাটি বিক্রয় ও পরিবহণ কাজে ব্যবহৃত নাম্বার বিহীন একটি ডাম্পার গাড়ি ঘটনাস্থল থেকে জব্দ করা হয়। এছাড়া পাহাড়কাটার দায়ে সংশ্লিষ্ট জড়িতদের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা করার জন্য তথ্য উপাত্ত সংগ্রহ করা হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, পরিবেশ ধ্বংস করে পাহাড় কর্তন কাজে জড়িতদের কোন ভাবে ছাড় দেয়া হবে না। উপজেলা প্রশাসনের এ অভিযান অব্যহত থাকবে বলেও তিনি জানান।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: চকরিয়ায়, ডাম্পার জব্দ, পাহাড়
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

11 + 5 =

আরও পড়ুন