দায়িত্বের শুরুতে শীতার্তদের পাশে রাঙামাটি জেলা পরিষদ সদস্য বিপুল ত্রিপুরা

fec-image

রাঙামাটি জেলা পরিষদের সদস্য বিপুল ত্রিপুরা তার বন্টনপ্রাপ্ত এলাকার হত-দরিদ্র শীতার্তদের পাশে দাঁড়িয়েছেন। রোববার (৩জানুয়ারি) দিনব্যাপী বালুখালী এবং বন্ধুকভাঙ্গা ইউনিয়নের ৮০টি পরিবারের মাঝে কম্বল বিতরণ করেছেন।

এছাড়াও তিনি ওইসব এলাকার বৌদ্ধ বিহার, মন্দির, মসজিদ এবং জীর্ণশীর্ণ প্রাইমারী স্কুলগুলো সংস্কার এবং নতুন স্কুল নির্মাণের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

সকালে তিনি প্রথমে বন্ধুকভাঙা ইউনিয়নের লেক্ষুংছড়া বৌদ্ধ বিহার পরিদর্শন করেন। বিহারের অধ্যক্ষ এবং বিহার পরিচালনা কমিটির সাথে বৈঠক করেন। বিহারের বিভিন্ন সমস্যা দ্রুত সমাধানের আশ্বাস প্রদান করেন। এরপর তিনি ওই ইউনিয়নের মুবাছড়ি এলাকার সাধনাপুর বৌদ্ধ বিহার পরিদর্শন করেন এবং ওই এলাকার ৯জন শীতার্তকে কম্বল বিতরণ করেন। বিহারের নানা সমস্যা দূর করা হবে বলে জানান।

এরপর তিনি বালুখালী ইউনিনের কেল্যাপাহাড় কালী মন্দির, স্কুল পরিদর্শন করেন এবং স্থানীয় পর্যায়ের নানা সমস্যার কথা শুনেন। মন্দির এবং স্কুলের সমস্যা তার পূর্ণকালীন মেয়াদে সমাধান করা হবে স্থানীয়দের জানান। এরপর তিনি ওই এলাকার ২০জন শীতার্তের মাঝে কম্বল বিতরণ করেন।

এছাড়া তিনি একই ইউনিয়নের মরিচ্যাবিল এলাকা, কিল্যাপাহাড় বাঙালি পাড়া এলাকায় শীতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরণ করেন। স্থানীয়দের অনুরোধের ভিত্তিতে ওই এলাকার পুরনো জামে মসজিদটি দ্রুত সংস্কারের ব্যবস্থা করে দিবেন বলে জানান।

এসময় তার সফর সঙ্গী ছিলেন, রাঙামাটি সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংঠনিক সম্পাদক নতুন ত্রিপুরা, বন্ধুকভাঙ্গা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি পারংপো ধনো চাকমা (বীমান), সাধারণ সম্পাদক ত্রিতোষ চাকমা, বালুখালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি রঞ্জিত তঞ্চঙ্গ্যা, সাধারণ সম্পাদক রূপায়ন ত্রিপুরাসহ অন্যান্যরা।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: আওয়ামী লীগ, রাঙামাটি, রাঙামাটি জেলা পরিষদ
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twenty − 11 =

আরও পড়ুন