পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তির দ্রুত বাস্তবায়নের তাগিদ

fec-image

পাহাড়ে স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠায় পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তির দ্রুত বাস্তবায়নের তাগিদ দিয়েছে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি (জেএসএস এমএন লারমা)। সাংবাদিক সমেমলনে স্থায়ী বাসিন্দাদের নিয়ে ভোটার তালিকা প্রণয়ন করে তিন পার্বত্য জেলা পরিষদআঞ্চলিক পরিষদের নির্বাচনসহ ৭ দফা দাবি তুলে ধরা হয়।

পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তির ২২বর্ষর্পূতি উপলক্ষে শনিবার দুপুরে খাগড়াছড়ির একটি রেস্টুরেন্টে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলন তারা এ দাবি জানান।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন, পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি জেএসএসের তথ্য ও প্রচার সম্পাদক সুধাকর ত্রিপুরা।  এ সময় উপস্থিত ছিলেন, জেএসএস এর কেন্দ্রীয় ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক সুদর্শন চাকমা, সহ-সাধারণ সম্পাদক সুভাষ কান্তি চাকমা, সাংগঠনিক সম্পাদক বিমল কান্তি চাকমা, সদস্য দুর্গারানী চাকমা, খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক সিন্ধু কুমার চাকমা, খাগড়াছড়ি সদর শাখার সভাপতি কিরণ বিকাশ চাকমা প্রমুখ।

সংবাদ সম্মেলনে বক্তরা বলেন, পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়নে সরকারের আন্তরিকতার পাশাপাশি অবাস্তবায়িত মৌলিক ধারাগুলো বাস্তবায়নে আরও আন্তরিকতা প্রয়োজন। তবেই পার্বত্য চুক্তির ধারাবাহিকতায় পাহাড়ের স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠিত হবে। এছাড়াও পার্বত্য চট্টগ্রামে সকলের আন্তরিক সহায়তা পেলে চুক্তি আরও দ্রুত বাস্তবায়ন ও পাহাড়ের সকল জনগোষ্ঠির উদ্বেগ-উৎকণ্ঠা থেকে মুক্তি মিলবে। পাশাপাশি প্রতিশ্রুত আর্থ-সমাজিক উন্নয়ন, শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও সামগ্রীক প্রত্যাশার উন্নয়ন ঘটবে।

পার্বত্য চুক্তিতে উল্লেখিত ভূমি কমিশনের বিধিমালা প্রণয়ন, জুম্ম জাতির বেদখল হওয়া জায়গা ফেরত, পার্বত্য আঞ্চলিক পরিষদ, জেলা পরিষদ সমূহের সম্পকিত সকল পরিসংখ্যান সংরক্ষণ, কার্যাবলি ও ক্ষমতা নির্বাহী আদেশের মাধ্যমে হস্তান্তর, স্থায়ী বাসিন্দাদের ভোটার তালিকা প্রণয়ন করে আঞ্চলিক পরিষদসহ ৩ পার্বত্য জেলা পরিষদের নির্বাচনসহ ৭ দফা দাবি তুলে ধরা হয় সংবাদ সম্মেলনে। এ সময় সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দিয়ে স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে অনতিবিলম্বে চুক্তির যথাযথ ও পূর্ণাঙ্গ বাস্তবায়নের দাবি জানান নেতৃবৃন্দরা।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

5 × three =

আরও পড়ুন