আলীকদমে ডাচ-বাংলা এজেন্ট ব্যাংকিং-এ টাকা মেরে দিয়েছে মালিকপক্ষ!

fec-image

বান্দরবানের আলীকদম উপজেলায় ডাচ-বাংলা ব্যাংকের এজেন্ট ব্যাংকিং-এ গ্রাহকের টাকা মেরে দিয়েছে মালিকপক্ষ ও ইনচার্জ। গ্রাহকদের এমন অভিযোগে এজেন্ট ব্যাংক এর ইনচার্জ বিনয় ত্রিপুরা ও বান্দরবান এরিয়া ম্যানেজা মো. জামাল উদ্দিন তালুকদারকে বৃহস্পতিবার বিকেলে পুলিশ হেফাজতে নেয়া হয়েছে।

আলীকদম থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন এ ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত ডাচ-বাংলা ব্যাংকের এজেন্ট ব্যাংকিং-এর বান্দরবান এরিয়া ম্যানেজার ও আলীকদম এজেন্ট ব্যাংকিং-এর ইনচার্জ বিনয় ত্রিপুরাকে থানায় রাখা হয়েছে। মালিকপক্ষ মাহাবুবুর রহমান পলাতক রয়েছে বলেও জানা গেছে।

অনুসন্ধানে ও সরেজমনি জানা গেছে, গত ৮ সেপ্টেম্বর আশুতোষ নামে একজন ব্যবসায়ী ৪০ হাজার টাকা মানি ট্রান্সপার করার জন্য আলীকদমে ডাচ-বাংলা ব্যাংকের এজেন্টে ব্যাংকিং-এ যান। সে সময় তার কাছ থেকে ৪০ হাজার টাকা ইনচার্জ বিনয় ত্রিপুরা নিয়ে বলেন, ‘এখন বিদ্যুৎ নেই। বিদ্যুৎ আসার পর টাকাগুলো পাঠানো হবে।’

ব্যবসায়ী আশুতোষ অভিযোগ করেন, বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) পর্যন্ত তার টাকাগুলি পাঠানো হয়নি এবং ফেরতও দেয়া হচ্ছে না। একইভাবে তাহেরা বেগম ৪০ হাজার টাকা একাউন্টে জমা করতে দেন ১৫ দিন আগে। তাকে জমা স্লিপ না দিয়ে শুধুমাত্র একটি টোকেনে লাল কালিতে টাকার অংক উল্লেখ করে টোকেন ধরিয়ে দেন।

ঘটনাস্থলে এ ধরণের আরো ৩/৪জন গ্রাহক দেখা যায়, যাঁদের কাছ থেকে টাকা নেওয়া হয়েছে কিন্তু সংশ্লিষ্ট একাউন্টে জমা দেওয়া হয়নি।

এ বিষয়ে ইনচার্জ বিনয় ত্রিপুরা বলেন, সব টাকা মালিক পক্ষে মাহাবুব নিয়ে গেছে। অপরদিকে, মালিকপক্ষের মাহাবুব বলেন, কিছুদিন আগেও সাড়ে তিনলাখ টাকা বিনয় ত্রিপুরাকে দেওয়া হয়েছে।

জানতে চাইলে ব্যাংকটির বান্দরবানের সংশ্লিষ্ট এরিয়া ম্যানেজার জামাল উদ্দিন তালুকদার বলেন, আমি এসব অনিয়ম জেনেছি আরো মাসখানেক আগে। অনিয়ম জানার পর কী ব্যবস্থা নিয়েছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি লিখিতভাবে কিছু এখনো করিনি।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় আলীকদম থানার ওসি মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন বলেন, এখনো পর্যন্ত কোন গ্রাহক বাদী হয়ে অভিযোগ দায়ের করেনি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আলীকদম এজেন্ট ব্যাংকিং এর মালিকপক্ষের লোকদের থানায় ডাকা হয়েছে। ওরা আসবে।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: আলীকদমে, এজেন্ট, ডাচ-বাংলা
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twenty − 18 =

আরও পড়ুন