বাঙ্গালহালিয়া হতে চন্দ্রঘোনা আসার পথে কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টা : ২সিএনজি চালক আটক

fec-image

যাত্রীকে চলন্ত গাড়িতে একা পেয়ে উপজাতীয় কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা করায় ২জন সিএনজি চালককে আটক করেছে চন্দ্রঘোনা থানা পুলিশ। মঙ্গলবার (২০ অক্টোবর) রাতে পৌণে ১০টায় বাঙ্গালহালিয়া এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়েছে।

চন্দ্রঘোনা থানা পুলিশ সুত্রে জানা যায়, বাঙ্গালহালিয়া থেকে চন্দ্রঘোনা ফেরার পথে ডাক বাংলো এলাকায় চলন্ত গাড়িতে একা পেয়ে সিএনজি চালক শওকত হোসেনের সহযোগিতায় ধর্ষণের চেষ্টা করে কলেজ ছাত্রীকে। এসময় কলেজছাত্রী চলন্ত গাড়ি থেকে লাফ দিয়ে সড়কে গড়িয়ে পড়ে আহত হয়। পেছন থেকে গণপরিবহণ আসলে দ্রুত ঘটনাস্থল ছেড়ে পালিয়ে যায় চালক।

পরে ভুক্তভোগী কলেজছাত্রী বাঙ্গালহালিয়া সেনা ক্যাম্পে অভিযোগ করলে সেনাবাহিনী, রাইখালী-বাঙ্গালহালিয়া সিএনজি মালিক সমিতি, স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সহযোগিতায় রাত পৌণে ১০টায় তাদের আটক করে চন্দ্রঘোনা থানা পুলিশ। আটক সিএনজি চালক মো. শাহিন রাঙ্গুনিয়ার কোদালা এলাকার মৃত আবু বকর সিদ্দিকের ছেলে এবং আটক শওকত হোসেন পাশ্ববর্তী রাঙ্গুনিয়ার সন্দিপ পাড়া এলাকার মো. আকবর হোসেনের ছেলে।

চন্দ্রঘোনা থানা অফিসার ইনচার্জ ইকবার বাহার চৌধুরী জানান, ‘ধর্ষণের চেষ্টা’য় আটককৃতদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করার প্রস্তুতি চলছে। বুধবার (২১অক্টোবর) তাদের রাঙামাটি আদালতে প্রেরণ করা হবে। এ ব্যাপারে নারী ও শিশু নির্যাতনে আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: আটক, উপজাতীয়, ধর্ষণ
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

three × 1 =

আরও পড়ুন