বান্দরবানে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা জাতীয় ফুটবল টুর্নামেন্টে নাইক্ষ্যংছড়ি ও আলীকদম একাদশ জেলা চ্যাম্পিয়ন

fec-image

বান্দরবানে জেলা পর্যায়ে “বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা জাতীয় ফুটবল টুর্নামেন্ট’ অনুর্ধ-১৭ এর ফাইনাল খেলা শেষ হয়েছে। এবারের আসরে নাইক্ষ্যংছড়ি সদর ইউনিয়ন (বালক) ও আলীকদম (বালিকা) একাদশ জেলা পর্যায়ে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করেছে।

সোমবার (৭ জুন) দুপুরে বান্দরবান স্টেডিয়ামে খেলা শেষে খেলোয়াড়দের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন জেলা প্রশাসক ইয়াছিন পারভীন তিবরিজী। এসময় তিনি বলেন, খেলাধুলার সুস্থ্য প্রতিযোগিতা অপসংস্কৃতি থেকে ছেলেমেয়েদের দূরে রাখে। সুস্থ্য দেহ ও সুস্থ মন সমৃদ্ধ ছেলেমেয়েদের খেলাধুলায় আরও অগ্রগামী করতে সবধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দেন তিনি।

বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের (বালক) ফাইনালে রোয়াংছড়ি একাদশকে ৩-০ গোলে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয় নাইক্ষ্যংছড়ি সদর একাদশ। তাদের পক্ষে তিনটি গোল করেন যথাক্রমে সুথোয়াই মারমা, আক্য মারমা ও ফয়েজ।

অপরদিকে, বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনালে লামা একাদশকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে আলীকদম একাদশ।

টুর্নামেন্টের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে অন্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন পৌর মেয়র ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ ইসলাম বেবী, পুলিশ সুপার জেরিন আখতার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক লুৎফর রহমান ও সাইফুল আলম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার অশোক কুমার পাল, রোয়াংছড়ি ইউএনও আবদুল্লাহ আল জাবেদ, জেলা ক্রিড়া অফিসার মাইনুদ্দিন মিল্কী, বান্দরবান জেলা পরিষদ সদস্য ক্যানে ওয়ান চাক।

এই আসরে (বালিকা) ম্যান অব দ্যা ম্যাচ টুম্পা, সেরা গোল রক্ষক লাকিং মে। (বালক) ম্যান অব দ্যা ম্যাচ মো: আমিন, সেরা গোল রক্ষক সাদেক হোসেন এবং ম্যান অব দ্যা টুর্নামেন্ট নির্বাচিত হয়েছে নাইক্ষ্যংছড়ি একাদশের আক্য মারমা

এদিকে ফুটবল খেলার মাধ্যমে বান্দরবান জেলাকে জাতীয় পর্যায়ে সম্মানিত করায় নাইক্ষ্যংছড়ির কৃতি সন্তান ওসাই মং মারমাকে অভিনন্দন জানিয়ে ক্রিড়া সংস্থার ব্লেজার উপহার দিয়েছেন জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র মো. ইসলাম বেবী। সোমবার খেলা শেষে সৌজন্য সাক্ষাতকালে এই উপহার তুলে দেন তিনি। উল্লেখ্য ওসাই মং বর্তমানে ঢাকায় মুক্তিযোদ্ধা ক্রিড়া সংস্থার হয়ে খেলছেন।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

five + two =

আরও পড়ুন