টানা বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলে বাইশারী-আলীকদম সড়কের বেহাল দশা

fec-image

টানা বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলে বান্দরবানের নাইক্ষংছড়ি উপজেলার বাইশারী ইউনিয়নের অংশে অবস্থিত বাইশারী-আলীকদম সড়কের বিভিন্ন স্থানে ভেংগে গিয়ে বেহাল দশায় পরিনত হয়েছে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, উপজেলার বাইশারী ইউনিয়নের অংশে অবস্থিত বাইশারী বাজার হয়ে আলীক্ষ্যং পর্যন্ত দীর্ঘ ৯ কিঃমিঃ সড়কটি বান্দরবানের সড়ক ও জনপথ বিভাগের অধীনের কিছু অংশ (৩ কিঃমিঃ)কার্পেটিং দ্বারা উন্নয়ন করা হয়। এছাড়া বাকী অংশ ব্রীক সলিন দ্বারা উন্নয়ন করা হয়েছে। এরই মধ্যে অনেক গুলো কালভার্ট ছোট খাট ও ব্রীজ ও নির্মাণ করা হয়েছে।

গত ২৬ জুলাই থেকে টানা বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলে সড়কের বিভিন্ন স্থানে ভেঙ্গে গিয়ে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন অবস্থায় রয়েছে। সড়কের অনেক স্থানে পাহাড়ের মাটি পড়েছে, আবার অনেক অনেক স্থানে পানিতে ভেঙ্গে গেছে, কার্পেটিং রাস্তার অংশ পুরাতন ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন এলাকায় ফাটল ধরেছে। তাছাড়া সড়কের চাইল্যাতলি, মালটা বাগান, থুইলাঅং পাড়া, লম্বাবিল এলাকায় পানিতে তলিয়ে গিয়ে বেহাল অবস্থায় পরিনত হয়েছে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আনোয়ার সাদেক জানান, এবারের টানা বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলে রাস্তাটির অবস্থা খুব খারাপ হয়েছে। তিনি আরও জানান অতি গুরুত্বপূর্ণ সড়কটির অবস্থা খারাপ হওয়ায় জনদূর্ভোগ এখন চরমে। তিনি দ্রুত রাস্তাটি মেরামত করে গাড়ি চলাচলের উপযোগী করার দাবি জানান সংশ্লিষ্ট দপ্তরের নিকট।

নাজমা খাতুন রাবার বাগানের সিনিয়র ব্যবস্থাপক আল আমিন জানান, সড়কের উভয় পাশে কয়েক হাজার একর রাবার বাগান রয়েছে। বর্তমানে সড়কের বিভিন্ন স্থানে ভেঙ্গে যাওয়ায় রাবার নিয়ে আসা মুশকিল হয়ে পড়েছে।

বাইশারী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো. আলম কোম্পানি বলেন, বাইশারী-আলীক্ষ্যং সড়কটি সড়ক ও জনপথ বিভাগের অধীনে তাই অন্য ডিপার্টমেন্ট ওখানে কাজ করবেনা। সেহেতু তাদের সাথে কথা বলে দ্রুত মেরামতের জন্য বলা হবে। তাছাড়া সড়কটির শেষ অংশে আলীক্ষ্যং খালের উপর একটি ব্রীজের অভাবে হাজারো মানুষের চরম দুর্ভোগের শিকার হচ্ছে। তিনি ব্রীজটি নির্মানের জন্য সড়ক ও জনপথ বিভাগের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।

এবিষয়ে বান্দরবান সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলীর মো. মোসলহ উদ্দিনের নিকট মুঠো ফোনে জানতে চাইলে তিনি এই পার্বত্যনিউজকে জানান, বর্তমানে সড়ক ও জনপথ বিভাগের লোকজন নাইক্ষংছড়িতে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত সড়কে কাজ করছেন। আগামীকাল বাইশারী-আলীকদম সড়কের বাইশারীর অংশ পরিদর্শন করে দ্রুত মেরামতের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। তাছাড়া আমাদের লোকজন টানা বর্ষনের জন্য আগাম প্রস্তুতি নেওয়ার কারণে অনেক সড়ক ক্ষয়ক্ষতি থেকে রক্ষা পেয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 + 10 =

আরও পড়ুন