টেকনাফের বাজার ছেয়ে গেছে আগাম তরমুজে: দাম সহনীয়

teknaf pic -(t) 15-12-13
মুহাম্মদ ছিদ্দিকুর রহমান, টেকনাফ:
সীমান্ত উপজেলা টেকনাফে চলতি বছরেরেআগাম তরমুজ বাজারে এসেছে। সাধারণ মানুষরা মৌসুমী ফল তরমুজ যেমনি সহজে খেতে পারছে তেমনি আগাম তরমুজ বেচে উৎপাদকারী কৃষকরা লাভবান হচ্ছে। এতে আগাম তরমুজ উৎপাদনকারী কৃষককূলের মাঝে আনন্দ দেখা দিয়েছে।

পৌর এলাকার ষ্টেশনের নাফ পেপার বিতানের সামনে স্থানীয় ব্যবসায়ীরা মৌসুমী তরমুজ বিক্রির মিনি আড়ৎ বসিয়েছে। ব্যবসায়ীরা জানিয়েছেন, তাঁরা চলতি সপ্তাহ থেকে টেকনাফের বিভিন্ন গ্রামে আগাম তরমুজ চাষীদের কাছ থেকে ফল সংগ্রহ করতে শুরু করেছে। এদিকে সিজনের শুরুতে তরমুজ বিক্রি হওয়ায় সাধারণ ক্রেতার ভিড় লক্ষ্য করা গেছে। বাজারে আগত অনেক ক্রেতা বলছেন এই সময়ে কিভাবে তরমুজের ফলন হয়েছে। অন্যান্য সিজনে শুরুতে তরমুজের দামের চেয়ে এবারে অনেকটা কম বলে ক্রেতারা দাবী করছে।

কথা হয়, তরমুজ বিক্রেতা পল্লান পাড়া এলাকার মুহাম্মদ আলীর পুত্র ফরিদ আলমের সাথে। তিনি জানান,  সিজনের শুরুতে যে কোন ফলের কদর বেশী হওয়ায় কৃষকের কাছ থেকে চড়া দামে কিনেও গ্রাহকদের বিক্রি করে ভাল মত লাভবান হাতে পারছি। সাবরাংয়ের তরমুজ চাষী আব্দুল গফুর জানান, সনাতন পদ্ধতি তথা গতনুগতিক পন্থায় অগ্রীম বীজ রোপন করে সহজে ফল ঘরে তুলতে পেরে খুব ভাল লাগছে। বর্ষার পর পর হওয়ায় আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় একদিকে যেমন কষ্ট বেশী হলেও ক্ষেতে পানি পরিবেশনে কম কষ্ট হয়েছে। এ মৌসুমে মাত্র ৩শ টি তরমুজ বিক্রি করে ১৭ হাজার টাকা পাওয়ায় তার দেখাদেখিতে পাড়া-প্রতিবেশীরা আগামীতে এরকম আগাম চাষের চিন্তা করছে। 

উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা শেখ জামাল উদ্দিন জানান, কৃষক যদি এভাবে আগাম চাষ করে তাহলে অধিক লাভবান হবে। আগামী মৌসুম থেকে আগাম চাষাবাদে কৃষকদের উদ্বুদ্ধ করতে কারিগরী সহযোগীতা অব্যাহত থাকবে। জানতে চাইলে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো: আব্দুল লতিফ বলেন, উপকূলীয় অঞ্চলে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে পাইলট প্রকল্প হিসেবে এখানে তরমুজের প্রদর্শনী ও প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। মাঠ পর্যায়ের কৃষকদের উদ্বুদ্ধ করতে শ্রীঘ্রই উক্ত প্রশিক্ষণ কর্মশালা করা হবে। কৃষি উৎপাদন বাড়াতে কৃষকের যে কোন সমস্যা সমাধানে আমরা মাঠ পর্যায়ে পরমার্শ দিয়ে আসছি। আগাম চাষাবাদে যে কেউ কৃষি অফিসের সাথে যোগাযোগ করলে সব ধরণের সহযোগিতা করা হবে।

Print Friendly, PDF & Email
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 × five =

আরও পড়ুন