বান্দরবানে ছাত্রদলের কমিটি গঠনে বিভাগীয় টিমের বিরুদ্ধে অভিযোগ : ঢাকায় তলব

fec-image

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের বান্দরবানের ১০টি ইউনিট কমিটি গঠনে বিভাগীয় সাংগঠনিক টিমের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে। জেলা কমিটির নেতাদের অভিযোগ অন্তত ১০টি ইউনিট কমিটি অনুমোদনে বিভাগীয় টিম প্রভাব বিস্তার করেছে। এই নিয়ে কেন্দ্রীয় কমিটি বরাবর একটি অভিযোগও করেছেন তারা।

কেন্দ্রীয় কমিটি বরাবরে প্রেরিত ওই অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, বিভাগীয় টিমের বেশ কয়েকজন নেতারা সম্ভাব্য ইউনিট কমিটি গঠনে নিজেদের পছন্দের লোককে জায়গা দিতে জেলা কমিটিকে চাপ দিচ্ছে। ফলে ইউনিট কমিটি নিয়ে পাল্টাপাল্টি কয়েকটি গ্রুপ তৈরি হচ্ছে।

সূত্রে জানা গেছে, ছাত্রদলের চট্টগ্রাম বিভাগীয় টিমের সহ সভাপতি কেএসএম মুসাব্বির সাফি, পাবেল শিকদার, যুগ্ম সম্পাদক এবিএম মাহমুদ আলম সরদার, সহ-সাধারণ সম্পাদক মাইন উদ্দিন নিলয়, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ফারুক আহমেদ সাব্বির। এসব নেতারা ছাত্রদলের জেলা-উপজেলাসহ ইউনিট কমিটি সমূহের দেখভাল করছেন।

গত ৬ অক্টোবর বান্দরবান জেলা ছাত্রদলের সভাপতি আশরাফুল আমিন ফরহাদ এবং সাধারণ সম্পাদক অমিত ভূষণ তঞ্চঙ্গ্যা বিভাগীয় এই টিমের বিরুদ্ধে কেন্দ্রীয় কমিটির কাছে লিখিত অভিযোগ করেছেন।

অভিযোগে তাঁরা উল্লেখ করেছেন- বান্দরবান জেলা ছাত্রদলের পক্ষে গত ২৩ জুলাই যৌথ স্বাক্ষরে ১০টি ইউনিট কমিটি জমা দেন তারা। তাদের দাবি- কমিটিগুলো স্থানীয়ভাবে আলাপ-আলোচনা ও ছাত্র সমাবেশ করে মতবিনিময়ের মাধ্যমে গঠন করেছিলেন। কিন্তু বিভাগীয় টিম বান্দরবান জেলা ছাত্রদলের পক্ষে পাঠানো কমিটিগুলো পুরোপুরি বদলে ফেলেন এবং তাদের পছন্দের লোকদের নাম লিখে বান্দরবান জেলা ছাত্রদল সভাপতি ও সম্পাদককে স্বাক্ষর করার জন্য চাপ প্রয়োগ করেন।

বান্দরবান জেলা ছাত্রদলের নেতাদের মতে, বিভাগীয় টিমের কমিটিতে স্বাক্ষর করার অর্থ জেলার ত্যাগী, মামলা-হামলা-নির্যাতিত ছাত্রদলের নেতাকর্মীদের সঙ্গে এবং সাবেক রাষ্ট্রপতি শহীদ জিয়ার আদর্শের রাজনীতির সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করা। বান্দরবান জেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক অমিত তংচঙ্গ্যা জানান- সম্ভাব্য গঠন প্রক্রিয়াধীন উপজেলা পর্যায়ের এক নেতার বিরুদ্ধে ক্ষমতাসীন দলের নেতাদের সাথে লিঁয়াজোসহ আন্দোলন সংগ্রামে না থেকেও গুরুত্বপূর্ণ পদ পেতে তদবির করছে।

সদ্য বিবাহিত ওই নেতার বিষয়ে আনীত অভিযোগের বিষয়ে খোঁজ নেওয়া হচ্ছে।

এই প্রসঙ্গে জানতে চাইলে বান্দরবান জেলা ছাত্রদলের সভাপতি আশরাফুল আমিন ফরহাদ বলেন- দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশ ত্যাগী, শিক্ষিতদের নিয়ে কমিটি করা। এরই ধারাবাহিকতায় বান্দরবানের ইউনিট কমিটিগুলো গঠনের জন্য তারা চেষ্টা করেছেন। বিভাগীয় কমিটির বিরুদ্ধে প্রকাশ্যে কোন বক্তব্য দিতে অস্বীকৃতি জানালেও তিনি কেন্দ্রীয় কমিটির কাছে অভিযোগের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

এদিকে এই বিষয়ে ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় সভাপতি ফজলুর রহমান খোকন বলেন- বান্দরবান ছাত্রদলের কমিটি নিয়ে সাংগঠনিক টিমের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ পেয়েছি। অভিযোগ পাওয়ার পরেই সমস্যা সমাধানের জন্য বান্দরবানের সভাপতি, সাধারণ
সম্পাদককে ঢাকায় আসতে বলেছি।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: ছাত্রদল, বান্দরবান
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

two × 3 =

আরও পড়ুন