আজ উখিয়ায় মুজিববর্ষের নতুন ঘর পাচ্ছেন ৩৫ গৃহহীন পরিবার

fec-image

মুজিববর্ষে কেউ ভূমিহীন-গৃহহীন থাকবে না, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এমন ঘোষণা অনুযায়ি আশ্রয়ন প্রকল্পের আওতায় প্রথম পর্যায়ে ৬৬ হাজার ১৮৯ ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবারকে দেয়া হতে যাচ্ছে ঘর ও দলিল। শনিবার (২৩ জানুয়ারি) আনুষ্ঠানিকভাবে যা প্রদান করবেন প্রধানমন্ত্রী। সেই হিসেবে উখিয়ায় ১০০টি ঘরের মধ্যে আজ ৩৫ গৃহহীন পরিবার মুজিববর্ষের উপহার হিসেবে গৃহহীন প্রতিটি পরিবার পাবেন ২ শতাংশ খাস জমির মালিকানা এবং দু’কক্ষ বিশিষ্ট একটি ঘর।

বৈশ্বিক জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রভাবে ক্ষতিগ্রস্ত দেশগুলোর মধ্যে অন্যতম বাংলাদেশ। বন্যা, ঘূর্ণিঝড়, নদী ভাঙ্গন ও জলোচ্ছাসের মতো প্রাকৃতিক দুর্যোগে এদেশের অনেক মানুষ হয়ে পড়ছে ভূমিহীন। সেই সাথে রয়েছে দারিদ্র্যের মতো কারণও। তবে ভূমিহীন ও গৃহহীন প্রায় ৯ লাখ অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে সরকার। মুজিববর্ষের উপহার হিসেবে আশ্রয়ণ-২ প্রকল্পের আওতায় গৃহ ও ভূমিহীন এসব পরিবারকে ঘর তৈরি করে দিচ্ছে সরকার।

নানা অসহায়ত্বের গন্ডি পেরিয়ে, ঘর পাওয়া এসব মানুষগুলো এখন নতুন জীবন গড়ার স্বপ্ন দেখছেন।ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সব বয়সের আশ্রয়হীন মানুষের স্বপ্নের কাছে পরম নিরাপদ আশ্রয় এই ঘরগুলো।

আজ শনিবার ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বিভিন্ন জেলা এবং উপজেলায় উপকারভোগিদের মাঝে আনুষ্ঠানিকভাবে ঘর বুঝিয়ে দেবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আগামী মাসের মধ্যেই বরাদ্দ করা হবে আরও ১ লাখ ঘর।

এই উপলক্ষ্যে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। এতে সভাপতিত্ব করছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার নিজাম উদ্দিন আহমেদ, প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত আছেন উখিয়া-টেকনাফের সংসদ সদস্য শাহীন আকতার (এমপি), সাবেক সংসদ আবদুর রহমান বদি, উখিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরী, সহকারি কমিশনার (ভূমি) আমিমূল এহসান খান, উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ আহমেদ সঞ্জুর মোরশেদ, রাজাপালং ইউপি চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান কামরুন্নেছা বেবী, রত্নাপালং ইউপি চেয়ারম্যান খাইরুল আলম চৌধুরী, জালিয়া পালং ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল আমিন চৌধুরী, হলদিয়াপালং ইউপি চেয়ারম্যান শাহ আলমসহ সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব, সুশীল সমাজ, সাংবাদিক, নতুন ঘরের মালিকগণ।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: উখিয়া, মুজিববর্ষ
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

eighteen + 16 =

আরও পড়ুন