ভারতকে ইউরোপের সঙ্গে যুক্ত করবে সৌদি আরব

fec-image

নয়াদিল্লিতে জি-২০ শীর্ষ সম্মেলনের সাইডলাইন বৈঠকে মধ্যপ্রাচ্য এবং ইউরোপের সঙ্গে ভারতকে সংযুক্ত করার জন্য একটি বহুজাতিক রেল ও শিপিং চুক্তির ঘোষণা দেয়া হয়েছে। এ উপলক্ষে ভারত, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও সৌদি আরবের মধ্যে বন্দর এবং রেল সংক্রান্ত একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। এই চুক্তির মাধ্যমেই ইউরোপ এবং ভারতের সঙ্গে সংযুক্ত হবে মধ্যপ্রাচ্য। এর মাধ্যমে মধ্যপ্রাচ্য এবং ইউরোপের সাথে ভারতকে সংযুক্ত করার জন্য একটি অর্থনৈতিক করিডোর স্থাপন করা হবে। খবর সৌদি গেজেটের

শনিবার দিল্লিতে জি-২০ নেতাদের শীর্ষ সম্মেলনের সাইডলাইনে করিডোর চালু করার অনুষ্ঠানে বক্তৃতাকালে সৌদির ক্রাউন প্রিন্স বলেন, ‘আমি আজ আনন্দিত যে আমরা একটি অর্থনৈতিক করিডোরের জন্য একটি এমওইউ স্বাক্ষর করতে এই বন্ধুত্বপূর্ণ দেশে একত্রিত হয়েছি। ভারতকে মধ্যপ্রাচ্য ও ইউরোপের সঙ্গে যুক্ত করার প্রকল্প। এই প্রকল্পটি গত কয়েক মাস ধরে আমাদের যৌথ প্রচেষ্টার চূড়ান্ত পরিণতি।’

তিনি বলেন, ‘এটি এমন নীতির উপর নির্মিত যা অর্থনৈতিক সংযোগ বৃদ্ধি করে এবং অন্যান্য দেশে আমাদের অংশীদারদের এবং সামগ্রিকভাবে বিশ্ব অর্থনীতিতে ইতিবাচকভাবে প্রভাবিত করে।’

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ভারত-মধ্যপ্রাচ্য-ইউরোপ সংযোগ করিডোর চালু করার ঘোষণা দিয়েছেন। এটি ভারত, সংযুক্ত আরব আমিরাত, সৌদি আরব, ইইউ, ফ্রান্স, ইতালি, জার্মানিকে সংযুক্ত করবে।

সৌদি আরব এবং মার্কিন সরকার ঘোষণা করেছে যে তারা শুক্রবার দুই দেশের মধ্যে একটি সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) স্বাক্ষর করেছে। দ্বিপাক্ষিক সমঝোতা স্মারকটি এশিয়া মহাদেশকে ইউরোপ মহাদেশের সাথে সংযুক্ত করার বিষয়ে ছিল।

এই প্রকল্পের লক্ষ্য হল নবায়নযোগ্য বিদ্যুত এবং পরিচ্ছন্ন হাইড্রোজেন ট্রান্সমিশন ক্যাবল এবং পাইপলাইনের মাধ্যমে এবং সেইসাথে রেল সংযোগ নির্মাণের সুবিধা প্রদান করা।

এর আগে মার্কিন উপ-জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা জন ফিনার জানিয়েছেন, শিপিং এবং রেল পরিবহন বিষয়ক এই সমঝোতা চুক্তি মধ্যপ্রাচ্যজুড়ে ভারত থেকে ইউরোপে তথ্য, শক্তি এবং বাণিজ্যের প্রবাহের পথ আরও সুগম করবে। তিনি আরও জানান, সৌদি আরব এবং ভারতের পাশাপাশি এই প্রকল্পের মূল অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে রয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাত এবং ইউরোপীয় ইউনিয়ন।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: ইউরোপ, ভারত, সৌদি আরব
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন