মহেশখালীতে সন্ত্রাসী সোলাইমান বাহিনীর গুলিতে স্কুল ছাত্রসহ আহত ৬

fec-image

কক্সবাজার মহেশখালী উপজেলার কুতুবজোম ইউনিয়নে সন্ত্রাসীদের গুলিতে স্কুল ছাত্রসহ ৬জন গুলিবিদ্ধ হয়েছে।গুলিবিদ্ধ ১জনকে আশংকাজনক অবস্থায় কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

সোমবার (১৩ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ১১টায় কুতুবজোম ইউনিয়নের নয়া পাড়া গ্রামে ঘটনাটি ঘটে।

জানা যায়, নয়াপাড়া গ্রামের খুইল্যা মিয়ার পুত্র আলী হোসেন এর সাথে একই গ্রামের আব্দুস সবুর মাঝির মধ্যে জমি সংক্রান্ত বিরোধ ছিল দীর্ঘদিন ধরে। এই বিরোধের জের ধরে সোমবার সাড়ে ১১টায় ২পক্ষের সংঘর্ষ সৃষ্টি হলে আব্দুস সবুর মাঝির পক্ষের সোলাইমান, লেদু মিয়া, সাহাব উদ্দিন ও সেলিমের নেতৃত্বে গুলিছুড়ে।এতে নয়াপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ২শিশু শিক্ষার্থীসহ ৬জন আহত হয়।

আহতরা হলেন আলী হোসেনের পুত্র সাদ্দাম হোসেন (২৩), নুরুল আবচার, আয়েশা বেগম, আলী হোসন। তবে এখনও স্কু্ল শিক্ষার্থীদের নাম জানা যায় নি।

গোলাগুলির সংবাদ পেয়ে মহেশখালী থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

স্থানীয়রা  জানায়, কয়েক দিন পুর্বে একটি ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে ঘটনাটির সুত্রপাত হয়।পরে এটি জমির বিরোধে রুপ নেয়।

এ ব্যাপারে মহেশখালী থানার ওসি প্রভাষ চন্দ্র ধর জানায়, কুতুবজোমে দুই পক্ষের বন্দুক যুদ্ধের সংবাদ পেয়ে দ্রুত পুলিশ ঘটনাস্থলে পাঠানো হয়েছে। অস্ত্রধারীদের ধরতে পুলিশের অভিযান অব্যহত রয়েছে।

এদিকে সন্ত্রাসী সোলাইমানকে ধরতে বার বার ব্যর্থ হচ্ছে পুলিশ। গত বছরের জুলাই মাসে একটি চিংড়ি ঘর দখল করতে এসে প্রকাশ্যে অস্ত্র নিয়ে এলাকায় মহড়া দিয়ে আতংক সৃষ্টি করেছে। পরে পুলিশ অভিযান চালিয়ে তাকে আটক করার পরও কৌশলে সে পালিয়ে যায়।

এলাকাবাসীর অভিযোগ দ্রুত সময়ে সোলাইমানসহ তার সহযোগিদের গ্রেফতার করা না হলে এলাকায় আরো বড় ধরনের সংঘাত সৃষ্টি হবে।

বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন খোকন বলেন, সন্ত্রাসী সোলাইমানের বিরুদ্ধে বহু অভিযোগ ও মামলা রয়েছে। তাকে দ্রুত আটক করার আহ্বান জানাচ্ছি।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: আহত, কক্সবাজার, কুতুবজোম
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

eighteen + eleven =

আরও পড়ুন