সীমান্তে বন্দুকযুদ্ধে ইয়াবা কারবারি নিহত: ইয়াবাসহ অস্ত্র উদ্ধার

fec-image

বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমধুম ইউনিয়নের বাইশফাঁড়ি সীমান্তে বিজিবির সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এক অজ্ঞাতনামা ইয়াবা কারবারি নিহত হয়েছে। বিজিবি এসময় ঘটনাস্থল থেকে একটি দেশি তৈরি দু’নলা বন্দুক, ৪ রাউন্ড কার্তুজ ও ৫০হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করেছে।

২১ জানুয়ারি (বৃহস্পতিবার) দিবাগত রাত সাড়ে ৩টার দিকে সীমান্তের ৩৬/২ এস নং পিলারের সন্নিকটে এই বন্দুক যুদ্ধের ঘটনা ঘটে।

কক্সবাজার ৩৪ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্নেল আলী হায়দার আজাদ আহমদ বলেন, নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমঘুম ইউনিয়নের তুমব্রু বাইশফাঁড়ি সীমান্ত দিয়ে মিয়ানমার থেকে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা আসার খবর পেয়ে বিজিবি সেখানে অবস্থান নেয়। রাত সাড়ে ৩টার দিকে একটি ইয়াবা কারবারির দলকে মিয়ানমার থেকে আসতে দেখে বিজিবি তাদেরকে চ্যালেঞ্জ করলে ইয়াবা কারবারিরা টহল দলকে লক্ষ্য করে এলোপাথাড়ি গুলি বর্ষণ শুরু করে, তখন টহল দল তাদের জানমাল রক্ষার্থে পাল্টা গুলি করে।

এসময় ইয়াবা ব্যবসায়ীরা পাহাড়ি জঙ্গলের মধ্য দিয়ে মিয়ানমারের দিকে পালিয়ে যায়। পরে টহল দল ঘটনাস্থল থেকে অজ্ঞাতনামা এক ইয়াবা কারবারিকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ইয়াবা ও দেশি তৈরি দু’নলা বন্দুকসহ উদ্ধার করে উখিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। প্রাথমিকভাবে নিহত মাদক কারবারির পরিচয় শনাক্ত করা গেছে । সে কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্প-১, ব্লক-এ/৭, এর ওয়াদুল হকের ছেলে মো. আব্দুর রহিম (২৫)। উদ্ধারকৃত ইয়াবার মূল্য প্রায় ১ কোটি ৫০ লাখ টাকা। এ ব্যাপারে আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলেও তিনি জানিয়েছেন।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: অস্ত্র, ইয়াবা কারবারি, ইয়াবাসহ
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four × 3 =

আরও পড়ুন