ধর্ষণের শাস্তি মৃত্যুদণ্ড করায় টেকনাফে ছাত্রলীগের আনন্দ মিছিল

fec-image

ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ডের বিধান করে মন্ত্রিসভায় সংশোধিত ‘নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন, ২০০০’ এর খসড়া চূড়ান্ত অনুমোদন দেওয়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানিয়ে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ টেকনাফ উপজেলা ও পৌর শাখার যৌথ-উদ্যোগে স্বাগত মিছিল ও পথ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার (১৪ অক্টোবর) বিকেলে টেকনাফ উপজেলা ও পৌর শাখার যৌথ-উদ্যোগে বিশাল আনন্দ মিছিল শেষে শাপলা চত্বরে পথসভায় মিলিত হয়।

এতে টেকনাফ উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মোঃ সুলতান মাহমুদের সভাপতিত্বে ও যুগ্ন-সাধারণ সম্পাদক আবদুল বাসেদের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত পথসভায় বক্তব্য রাখেন টেকনাফ উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম মুন্না, টেকনাফ পৌরসভা ছাত্রলীগের সভাপতি মোহাম্মদ শাহীন, সাধারণ সম্পাদক মোঃ ইব্রাহীম বাবলু, টেকনাফ সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুল ইসলাম।

বক্তারা বলেন, ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ডের বিধান করে মন্ত্রিসভায় সংশোধিত ‘নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন, ২০০০’ এর খসড়া চূড়ান্ত অনুমোদন দেওয়ায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানিয়ে ও উক্ত সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়ে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় নির্বাহি সংসদের কর্মসূচীর আলোকে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ এই উদ্যোগ নেয় এবং ধর্ষণকে ইস্যু করে যারা ষড়যন্ত্রের মাধ্যমে সরকার বিরোধী অপপ্রচার ও গুজব ছড়াচ্ছে তাদেরকে রাজপথে মোকাবেলা করার হুশিয়ারি উচ্চারণ করেন।

আনন্দ মিছিল ও পথসভায় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন টেকনাফ উপজেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি আলি আকবর, মো. ইয়াহিয়া, মো. রফিক, আইন বিষয়ক সম্পাদক সাদেকুল আমিন, স্কুল ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক হামিদুর রহিম, পাঠাগার সম্পাদক জর্জ শর্মা, সদস্য তুষার সিকদার, সদর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি শফিক আলম শকু, সাবরাং ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি মাহমদুল হক মুন্না, শাহপরীর দ্বীপ ছাত্রলীগের সভাপতি হাফিজ উল্লাহ, হ্নীলা ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি হাফেজ নুর কামাল, সাধারণ সম্পাদক(ভারপ্রাপ্ত) সালাউদ্দীন কাদের, হোয়াইক্যং ইউনিয়ন দক্ষিণ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) দেলোয়ার হোসেন সিকদার, সাধারণ সম্পাদক জামাল উদ্দীন, বাহারছড়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুল ইসলাম সিফাতসহ টেকনাফ উপজেলা ও পৌর ছাত্রলীগের সিনিয়র নেতৃবৃন্দ এবং বিভিন্ন স্কুল মাদ্রাসার সভাপতি ও সম্পাদক ও ইউনিয়নের সিনিয়র নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email
ঘটনাপ্রবাহ: ছাত্রলীগ, টেকনাফ, প্রধানমন্ত্রী
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twelve + eighteen =

আরও পড়ুন