বীর বাহাদুর পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পূর্ণ মন্ত্রী হলেন

বান্দরবান প্রতিনিধি:

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বান্দরবান আসনে বিপুল ভোটে আওয়ামী লীগ থেকে জয়লাভ করার পর পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি এবার মন্ত্রণালয়টির পূর্ণমন্ত্রী হলেন।

রবিবার বিকেলে মন্ত্রীপরিষদ সচিব শফিউল আলম সাংবাদিক সম্মেলন করে নতুন মন্ত্রীসভার নাম ঘোষণা করেন। এতে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পূর্ণ মন্ত্রী হিসেবে বাহাদুরের নাম ঘোষণা করা হয়। এর মাধ্যমেই তিন পার্বত্য জেলার সবচেয়ে মর্যাদাপূর্ণ আসনে কে বসছেন সে বিতর্কের অবসান ঘটে।

এর আগেই রবিবার সকালে মন্ত্রী পরিষদ বিভাগ থেকে ফোন করে  বীর বাহাদুরকে পূর্ণ মন্ত্রী পদমর্যাদায় পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী করা হচ্ছে বলে নিশ্চিত করা হয়। সোমবার তিনি নতুন সরকারের অন্য মন্ত্রীদের মতো বঙ্গভবনে শপথ গ্রহণ করবেন।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী সাচিং প্রু জেরীকে ৮৫ হাজার ২শত ৪৭ ভোটে পরাজিত করে বান্দরবান ৩০০ নং আসনে থেকে ৬ষ্ঠ বারের মত সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয় পাহাড়ের ক্লিন ইমেজের নেতা বীর বাহাদুর উশৈসিং। গত ৩০শে ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত নির্বাচনে বীর বাহাদুর উশৈসিং মোট ভোট পেয়েছেন ১ লাখ ৪৩ হাজার ৯শত ৬৬ ভোট। অন্যদিকে বিএনপি সমর্থিত সাচিং প্রু জেরী মোট ভোট পেয়েছেন ৫৮ হাজার ৭শত ১৯ ভোট। এর পর পরই একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিপুল ভোটে বান্দরবানের সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন বীর বাহাদুর উশৈসিং। বীর বাহাদুরের জয়ে উচ্ছাসিত পার্বত্য জেলাসহ বান্দরবানবাসী।

এ ব্যাপারে  জেলা  বান্দরবান জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো: মোজাম্মেল হক বাহাদুর ও  জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ সভাপতি এস বাসু দাস জানিয়েছিলেন,  আমরা নির্ভরযোগ্য সূত্র থেকে নিশ্চিত হয়েছি কাল সোমবার পূর্ণ মন্ত্রী হিসাবে শপথ গ্রহণের জন্য ফোন পেয়েছেন বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি। এছাড়াও বান্দরবান জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো: মোজাম্মেল হক বাহাদুরও জানান, তিনি মন্ত্রী হওয়ায় আমরা বান্দরবানবাসী অনেক খুশি।

বীর বাহাদুর পূর্ণ মন্ত্রী হওয়াকে পার্বত্যবাসী মনে করছেন পার্বত্য চট্টগ্রামের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ নজর ও গুরুত্বের প্রতিদান হিসেবে।  একই সাথে সৎ, অসাম্প্রদায়িক ও সফল মন্ত্রী হিসেবে বীর বাহাদুরের কৃতীত্বের ফলেও তিনি এই মর্যাদার আসনে অধিষ্ঠিত হলেন বলে মনে করছেন পার্বত্যবাসী।

ঘটনাপ্রবাহ: আওয়ামী লীগ, পার্বত্য মন্ত্রী, বান্দরবান

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

one × 4 =

আরও পড়ুন